বিবিসির আকবর হোসেনের সমস্যাটা কী?

Madrassa education vs Modern education
Pinaki Bhattacharya

বিবিসির আকবর হোসেনের সমস্যাটা কী?

বিবিসির আকবর হোসেন “বাংলাদেশে পাঠ্যপুস্তকে বিতর্কিত বিষয়, খুশি করেছে হেফাজতকে?” শিরোনামে সংবাদ ছেপেছে।

সংবাদে তিনি প্রথমেই লিখেছেন, ৮৫ জন বুদ্ধিজীবীর বরাত দিয়ে যে, “চলতি বছরের পাঠ্য বইতে তিন ধরনের ভুল, অসংগতি কিংবা বিকৃতি রয়েছে। তারা বলেছেন, বানান ও তথ্যগত বিকৃতি, বাক্য গঠনে ভুল এবং মৌলবাদ ও “সাম্প্রদায়িক” মনোবৃত্তির অনুপ্রবেশ ঘটানো হয়েছে”।

কাদের জন্য এই তথাকথিত “সাম্প্রদায়িক” মনোবৃত্তির অনুপ্রবেশ ঘটেছে, সেটা পরের বাক্যগুলিতে আকবর সাহেব স্পষ্ট করেছেন। তিনি লিখছেন, “২০১৬ সালে হেফাজতে ইসলাম দাবী তুলে ধরেছিল যে পাঠ্যপুস্তকে স্কুল পাঠ্য-পুস্তকে ইসলামী ভাবধারা বাদ দিয়ে ‘নাস্তিক্যবাদ এবং হিন্দুত্ব পড়ানো হচ্ছে।’

কিন্তু চলতি বছরে যে পাঠ্য-পুস্তক প্রকাশ করা হয়েছে সেখানে হেফাজতে ইসলাম পছন্দ করছে বলে প্রতীয়মান হয়।“ অর্থাৎ আকবর সাহবের মতে হেফাজত হচ্ছে এই পাঠ্যপুস্তকে “সাম্প্রদায়িকিকরনের” এজেন্ট।

তিনি আরো বলছেন, “পাঠ্য-পুস্তক নিয়ে যে বিতর্ক হচ্ছে তার দু’টো দিক রয়েছে। প্রথমত: বইতে ভুল এবং দ্বিতীয়ত: এমন কিছু ধর্মীয় বিষয় অন্তর্ভুক্ত করা হয়েছে যেটি শুধু মুসলমানদের জন্যই প্রযোজ্য।“ এটা আকবর হোসেনের কথা।

আকবর হোসেনকে প্রথম প্রশ্ন, রথযাত্রা, ঋষি, ঢোল ও ঢাক বাজানো, জল বলা, ভজন, প্রসাদ এসব কী স্যেকুলার বাক্য? “নিখিল জগত ব্রহ্মময়” এটা কি ইসলামের কথা? নাকি মুসলমানের জন্য প্রযোজ্য? নাকি হিন্দু অভিজ্ঞতা থেকে যেসব শব্দ বাংলা ভাষায় ঢুকবে সেগুলো স্যেকুলার আর মুসলিম ঐতিহ্য থেকে যেসমস্ত বাক্য বাংলা ভাষায় ঢূকলেই সেগুলোকে “সাম্প্রদায়িক” বলতে হবে? ঘৃণা সাজাতে হবে?

সবচেয়ে আপত্তিকর এবং বাজে কথা বলেছেন আকবর সাহেব, যেখানে তিনি শিক্ষামন্ত্রীর ছবি দিয়ে নিজের বয়ানে লিখছেন,” ‘সাম্প্রদায়িক শক্তির’ সাথে আপোষ করার যে অভিযোগ বিষয়ে মন্ত্রী কিছু বলেননি।“

পাঠক দেখুন, আকবর সাহেব কোট আনকোটের মধ্যে বলেছেন ‘সাম্প্রদায়িক শক্তির’ সাথে আপোষ করার যে অভিযোগ বিষয়ে মন্ত্রী কিছু বলেননি। এই “সাম্প্রদায়িক শক্তি” কে? আকবর সাহেব বলছেন এই সাম্প্রদায়িক শক্তি হেফাজত।

আকবর সাহেব, আপনি কোন হরিদাস পাল, যে কে সাম্প্রদায়িক আর কে সাম্প্রদায়িক নয় এইটার সার্টিফিকেইট দিচ্ছেন? একজন সাংবাদিক হয়ে আপনি এই কাজকি করতে পারেন? কে সাম্প্রদায়িক আর কে সাম্প্রদায়িক নয় এইটা বলতে হলে সাংবাদিকতা ছেড়ে রাজনীতিতে আসুন? এটা সাংবাদিকতার এথিক্সের মারাত্মক ভায়লেশন, আমাদের দুর্ভাগ্য বিবিসিও আপনার মতো এমন তৃতীয় শ্রেনীর সাংবাদিককে পয়সা দিয়ে পালে।

এর আগেও বৌদ্ধদের সাথে হেফাজতের আমিরের সভার রিপোর্টিং করতে গিয়ে আপনি সাংবাদিকতার এথিক্সের বিরোধী উস্কানিমুলক সাজেশন দিয়ে প্রশ্ন করেছিলেন।

আমরা অবশ্যই বিবিসির কাছে থেকে লিখিতভাবে আপনার এই সংবাদসমূহের ব্যাখ্যা চাইবো। সাংবাদিকতার নামাবলী জড়িয়ে স্যেকুলারগিরি চলবে না, আকবর সাহেব।

উস্কানি ছাড়েন, ভাল হতে পয়সা লাগে না! নিউজ করেন, ভিউজ ছাড়েন।

লেখাটির ফেইসবুক ভার্সন পড়তে চাইলে এইখানে ক্লিক করুন

Print Friendly, PDF & Email
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

Leave a Comment