Following India’s directive, Bangladesh denied visas to Kashmiri medical students

Several hundred students from Indian-administered Kashmir study in medical colleges in Bangladesh. These Kashmiri students are not being allowed to return to their colleges following their vacation in India. The India-based Bangladeshi High Commissions have blocked their entry to Bangladesh.

Subir Bhaumik, a senior Indian journalist has written in a Southasian Monitor article that “following directive from India” the India-based Bangladeshi High Commissions have rejected the visa application of the students. Students from other Indian students who study in Bangladesh are not facing any problem with the Bangladeshi visas. Only the Kashmiri students are being barred from entering Bangladesh by the Bangladeshi authorities. Around 350 Bangladesh-bound Kashmiri students have got stuck in Guwahati, Kolkata and Agartala after being denied the Bangladeshi visas.

We have read several reports of the Kashmiri students, who study in other Indian states, being harassed or tortured by the right-wing Hindu gangs there. Education is a fundamental human right for everyone, the Universal Declaration of Human Rights affirms. But, by asking Bangladesh not to issue the visas to the Kashmiri students India has violated their fundamental rights. New Delhi knows it very well that the government in Bangladesh is subservient to India. Now, the spineless government has carried out the order and denied visas to the Kashmiri students.

India strongly supports the Awami League-led unpopular fascist government and has succeeded to establish its authority in Bangladesh. Sheikh Hasina and her government, which is shamelessly subservient to New Delhi, are least concerned to defend and protect the sovereignty and national dignity of Bangladesh.

Click here to read the original Facebook post

বাংলাদেশের মেডিক্যাল কলেজগুলোতে ভারত নিয়ন্ত্রিত কাশ্মীরের অনেক ছাত্র ছাত্রী পড়ে। এই ছাত্রছাত্রীরা ছুটিতে কাশ্মীরে গিয়ে আর বাংলাদেশে আসতে পারছেনা। কারণ, ভারতে বাংলাদেশ হাই কমিশন তাদের বাংলাদেশে আসতে দিচ্ছেনা।

ভারতের সিনিয়র সাংবাদিক সুবীর ভৌমিক সাউথ এশিয়ান মনিটরে লিখছেন যে “ভারতের নির্দেশ মেনে” বাংলাদেশ হাই কমিশন এই ছাত্রছাত্রীদের ভিসার আবেদন প্রত্যাখ্যান করেছে। এই মুহুর্তে প্রায় ৩৫০ কাশ্মীরি ছাত্রছাত্রী বাংলাদেশের ভিসা না পেয়ে কোলকাতা, গৌহাটি ও আগরতলায় প্রায় একমাস ধরে আটকে আছে। বাংলাদেশ হাই কমিশন ভারতের অন্যান্য রাজ্যের ছাত্রছাত্রীদের ভিসা দিচ্ছে। কিন্তু শুধু কাশ্মীরি ছাত্রছাত্রীদের বাংলাদেশী ভিসা দেয়া হচ্ছেনা।

ভারতের বিভিন্ন রাজ্যে হিন্দুত্ববাদী দলগুলো কাশ্মীরি ছাত্রছাত্রীদের বিভিন্নভাবে হযরান বা জুলুম করে, এমন রিপোর্ট আমরা অনেক পড়েছি। এখন ভারত সরকার কাশ্মীরিদের শিক্ষার মতো মৌলিক অধিকারই শুধু বন্ধ করে দিয়েছে তা নয়, বাংলাদেশের অনুগত সরকারকে নির্দেশনাও দিয়েছে যেন তাদের ভিসা না দেয়া হয়। বাংলাদেশের সরকার কতখানি ভারতের বশংবদ হলে বাংলাদেশ নামের একটা স্বাধীন দেশের হাই কমিশনকে আরেকটি দেশ ভারত নির্দেশনা দিতে পারে?

ভারত বাংলাদেশের উপরে অজনপ্রিয় ফ্যাসিস্ট আওয়ামী সরকারের মাধ্যমে এমন কর্তৃত্ব প্রতিষ্ঠা করেছে যে বাংলাদেশের স্বাধীনতা ও সার্বভৌমত্ব এবং রাষ্ট্রীয় মর্যাদাকে হাসিনা ভুলুন্ঠিত করেছে।

লেখাটির ফেইসবুক ভার্সন পড়তে চাইলে এইখানে ক্লিক করুন

Share

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on pinterest
Share on email

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Feeling social? comment with facebook here!

Subscribe to
Newsletter